পাউডার থেকে ক্যানসার, ৯৩ হাজার কোটি টাকায় মামলা নিষ্পত্তি চায় জনসন অ্যান্ড জনসন

0
110
জনসন অ্যান্ড জনসন

বিশ্বজুড়ে একসময় ব্যাপক জনপ্রিয়তা পেয়েছিল জনসন অ্যান্ড জনসন বেবি পাউডার। কিন্তু তাদের ট্যালকম পাউডার ব্যবহার করে ক্যানসার হচ্ছে- এমন অভিযোগ সামনে আসার পরেই বিশ্বের অন্যতম এই জনপ্রিয় ব্র্যান্ডকে বাজার থেকে একপ্রকার সরিয়েই দেওয়া হয়েছে। দীর্ঘসময় ধরে মামলা চলছে জনসন অ্যান্ড জনসন কোম্পানির বিরুদ্ধে। মোটা অঙ্কের টাকা জরিমানা দিতেও বলা হয়েছে। এই দীর্ঘ সময়ে মামলার জেরে ক্ষতির মুখে পড়েছে কোম্পানি। তাই এবার বড় অঙ্কের টাকা দিয়ে গোটা ব্যাপারটার রফাদফা করতে চাইছে জনসন।

উইওনের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রায় ৮.৯ বিলিয়ন ডলার (১ ডলার = বাংলা টাকায় আজকের দর অনুযায়ী ১০৫.৩৪ টাকা। সেই হিসেবে ৮.৯ বিলিয়ন ডলার সমান ৯৩ হাজার ৭৫৪ কোটি ৯১ লাখ ৪০ হাজার টাকা) দিয়ে গোটা ব্যাপারটার ফয়সালা করার প্রস্তাব দিয়েছে জনসন অ্যান্ড জনসন। যদিও এই প্রস্তাব কতটা ফলপ্রসূ হবে তা এখনও জানা যায়নি।

কোম্পানির তরফে বলা হয়েছে, আদালতের নির্দেশ শিরোধার্য। অভিযোগ য়া উঠেছে তার ক্ষতিপূরণ দিতে কোম্পানি তৈরি। এবার ব্যাপারটার মীমাংসা করা হোক।

২০১৫ সালে ওভারিয়ান ক্যানস্যারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান ৬২ বছরের জ্যাকি ফক্স। জ্যাকির পরিবার জানায়, দীর্ঘ ৫০ বছর ধরে জনসন অ্যান্ড জনসন-এর ট্যালকম পাউডার ব্যবহার করেছেন তিনি। তারা অভিযোগ করেন জ্যাকির এই মারণ রোগের কারণ ওই পাউডারই।

এরপর সেন্ট লুইসের আদালত জনসন অ্যান্ড জনসনকে জরিমানার নির্দেশ দেয়। গোটা মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রেই এই হেলথ কেয়ার ফার্মের বিরুদ্ধে ১০০০ মামলা দায়ের হয়। আইনজীবীরা জানান, আরও হাজারেরও বেশি মামলা আদালতে ওঠার অপেক্ষায় আছে। যদিও এই সব অভিযোগই অস্বীকার করেছে জনসন অ্যান্ড জনসন কর্তৃপক্ষ। তারা দাবি করেছে, তাদের সব প্রোডাক্টই সুরক্ষিত।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.