১০ হাজার কর্মী ছাঁটাই করছে মাইক্রোসফট

0
41
মাইক্রোসফট

বৈশ্বিক অর্থনীতিতে মন্দার আলামত যেন ক্রমশই দৃশ্যমান হতে শুরু করেছে। আগেভাগে জানান দিচ্ছে প্রযুক্তি খাত। এবার জানা গেল, মার্কিন প্রযুক্তি কোম্পানি মাইক্রোসফট আরও ১০ হাজার কর্মী ছাঁটাই করতে যাচ্ছে। এর ফলে প্রতিষ্ঠানটির প্রায় পাঁচ শতাংশ কর্মী কমে যাবে।

মাইক্রোসফটের এক অভ্যন্তরীণ এক নোটিসের মাধ্যমে কর্মী ছাঁটাইয়ের এ তথ্য জানা গেছে। ওই নোটিসে প্রধান নির্বাহী সত্য নাদেলা বলেছেন, “কোভিডের সময় গ্রাহকেরা ব্যয়ের পরিমাণ বাড়িয়েছিলেন। তবে এখন মানুষ ‘সতর্কতার নীতি’ অনুসরণ করছে। বিশ্বের অনেক অংশে মন্দা চলছে। অনেক জায়গায় (মন্দা) আসন্ন।”

কোভিডকালে প্রযুক্তি ব্যবসা ব্যাপকভাবে বেড়ে যাওয়ায় অনেক কর্মী নিয়োগ করতে হয়েছিল এ খাতের প্রতিষ্ঠানগুলোকে। ২০২১ সালের জুন থেকে ২০২২ সালের জুন পর্যন্ত ৪০ হাজার নতুন কর্মী নিয়েছিল মাইক্রোসফট। ফলে প্রতিষ্ঠানটির স্থায়ী কর্মীর সংখ্যা দুই লাখ ২১ হাজারে দাঁড়িয়েছিল। এর মধ্যে ৯৯ হাজার যুক্তরাষ্ট্রের বাইরের।

গত বছর ব্যাবসার সেই গতিতে ভাটা পড়েছে। ফলে শুরু হয় কর্মী ছাঁটাই। সর্বশেষ ১০ হাজার কর্মী ছাঁটাইয়ের প্রক্রিয়া এ বছরের তৃতীয় ত্রৈমাসিকে সম্পন্ন হবে।

তবে কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তায় বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করে চলেছে প্রতিষ্ঠানটি। চ্যাটজিপিটি’র (জেনারেটিভ প্রি-ট্রেইন্ড ট্রান্সফরমার) নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ওপেনএআই-তে কয়েক বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করছে মাইক্রোসফট।

অ্যামাজন, ফেসবুক-ইনস্টাগ্রাম-হোয়াটসঅ্যাপের মালিকানা প্রতিষ্ঠান মেটাসহ কয়েকশ প্রতিষ্ঠান গত কয়েক সপ্তাহে কর্মী ছাঁটাইয়ের কথা জানিয়েছে। সম্প্রতি অ্যামাজন জানায়, পরিস্থিতি মোকাবিলায় ১৮ হাজারের বেশি কর্মীকে ছাঁটাই করা হবে। নভেম্বরে মেটা জানায়, তারা তাদের ১৩ শতাংশ অর্থাৎ ১১ হাজারের মতো কর্মীকে ছাঁটাই করবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.