‘মেসিকে নিয়ে একদিন অনুশোচনায় পুড়বে পিএসজি সমর্থকেরা’

0
101
এ মৌসুম শেষে পিএসজি ছাড়ছেন মেসি

ক্লাব কর্তৃপক্ষ দিয়েছে দুই সপ্তাহের নিষেধাজ্ঞা, সমর্থকেরা দিয়েছেন দুয়ো। পিএসজিতে এখন এমনই বিব্রতকর অবস্থা লিওনেল মেসির। মাঠের ফুটবলে পিএসজির হারে সমর্থকেরা শুধু দুয়োই দেননি, অনুমতি ছাড়া সৌদি আরব যাওয়ার ঘটনায় তাঁকে নিয়ে অপমানজনক স্লোগানও দিয়েছেন।

পিএসজির অফিশিয়াল সমর্থক গোষ্ঠী আল্ট্রার এমন কর্মকাণ্ডে ক্ষুব্ধ হাভিয়ের মাচেরানো। আর্জেন্টিনা জাতীয় দলে ১৩ বছর আর বার্সেলোনায় ৮ মৌসুম একসঙ্গে খেলেছেন মেসি-মাচেরানো। স্বদেশি ও সতীর্থ হিসেবে একে অপরকে বেশ ভালোই চেনেন তাঁরা। দীর্ঘদিনের চেনা হিসেবে মেসি সম্পর্কে মাচেরানোর মূল্যায়ন, মেসির মতো পেশাদার একজনকে অপমানের কারণে পিএসজি সমর্থকদের একদিন অনুশোচনায় ভুগতে হবে

মেসিকে পেলে যেকোনো দলই বর্তে যায় উল্লেখ করে ডি স্পোর্টস রেডিওকে তিনি বলেন, ‘আগামী ১০ বছরের মধ্যে ওরা অনুশোচনায় পুড়বে। বিশ্বের যেকোনো দল মেসির জন্য যেকোনো কিছু পাঁচ মিনিটের মধ্যে হাজির করবে। (এখানে যা হচ্ছে) এমন সমাপ্তি কারোই প্রাপ্য নয়। লিও’র (মেসির) কোনো ব্যাপার যদি সমালোচনার ঊর্ধ্বে থাকে, তবে সেটা তাঁর পেশাদারত্ব। কেউ যদি ফুটবল ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়ও হয়ে থাকে, মেসির মতো পেশাদারত্ব পাওয়াটা কঠিন।’

পিএসজি মেসিকে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে অনুমতি ছাড়া সৌদি আরব সফরে যাওয়ায়। পর্যটনদূত হিসেবে সৌদিতে যাওয়ার সূচি আগেই করা ছিল। ছুটিও চেয়েছেন মেসি। রোববার লঁরা ম্যাচের আগে কোচ ক্রিস্তফ গালতিয়ের ও ক্রীড়া পরিচালক লুইস কাম্পোস তাঁকে শর্ত সাপেক্ষে অনুমতি দেন।

কিন্তু সেদিনের ম্যাচটি পিএসজি হেরে যাওয়ায় সোমবার দলগত অনুশীলন বাধ্যতামূলক ছিল। থাকতে হতো মেসিকেও। কিন্তু তিনি সপরিবার সৌদি আরবে চলে যান। পিএসজির পক্ষ থেকে শাস্তির আগেই অবশ্য সমর্থকদের একটি অংশ দলের হারে মেসিকে দুয়ো দিয়ে যাচ্ছিল।

মাচেরানোর মতে, মেসিকে নিয়ে পিএসজি সমর্থকদের আচরণের কোনো ব্যাখ্যা হয় না, ‘এটা খুব দুঃখজনক যে মেসির মতো একজনকে পাওয়াটা যে সৌভাগ্য, সেটা ওরা বুঝতে পারছে না। আমার মনে হয়, ১০ বছর আগে পিএসজি সমর্থকদের কেউ কল্পনাও করেনি, ইতিহাসের সেরা খেলোয়াড়টিকে তারা একদিন দলে পাবে। সেটা পাওয়ার পর উপভোগের বদলে দুই বছর ধরে তাঁর সমালোচনা করে যাচ্ছে সমর্থকেরা।’

আর্সেনাল কিংবদন্তি ও ফরাসি কোচ রবার্ট পাইরেসও মেসিকে অপমান ও সমালোচনার বিষয়টি অমূলক বলে মনে করছেন। আর্জেন্টিনার টিওয়াইসি স্পোর্টসকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে পাইরেস বলেন, ‘আমি এই অপমানের কারণ বুঝতে পারছি না। এটা মেসির প্রাপ্য নয়। আমি খেললে যদি ওরা আমাকে দুয়ো দেয়, তার মানে আমাকে পছন্দ করে না। ব্যাপারটা আমার ক্ষেত্রে ঘটলে, দুয়ো দিলে, আমি চলে যেতাম। জানি না বার্সেলোনায় ফিরতাম কি না। তবে এটা নিশ্চিত, পিএসজিতে আর থাকতাম না।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.