হামলার শিকার হলে একে অপরের পাশে থাকবে

রাশিয়া-উ.কোরিয়া চুক্তি

0
42
প্রতিরক্ষা চুক্তি সইয়ের পর ভ্লাদিমির পুতিন ও কিম জং-উন। ছবি: সংগৃহীত
রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন ও উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন একটি ‘কৌশলগত অংশীদারিত্ব চুক্তি’ সই করেছেন। এই চুক্তির একটি ধারা রয়েছে- বহিঃশত্রুর দ্বারা যেকোনো একটি দেশ আক্রমণের শিকার হলে একে অপরের সাহায্যে এগিয়ে আসবে।
 
বুধবার উত্তর কোরিয়ার রাজধানী পিয়ংইয়ংয়ে কয়েক ঘণ্টা আলোচনার পর এ চুক্তি সই হয়। নয় মাসের মধ্যে কিমের সঙ্গে এটি পুতিনের দ্বিতীয় বৈঠক। খবর দ্য গার্ডিয়ানের।
 
পুতিনের সঙ্গে সাক্ষাতের পর উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত হন। তিনি বলেন, মস্কোর সঙ্গে যে চুক্তি হয়েছে তাতে রাজনীতি, অর্থনীতি ও প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে দুই দেশের সহযোগিতা জোরদার হবে। এটি সম্পূর্ণ শান্তিকামী ও প্রতিরক্ষামূলক চুক্তি।
 
পুতিন বলেন, উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে চুক্তি আমাদের উভয়কে আগ্রাসন থেকে রক্ষা করবে। এছাড়া রাজনৈতিক, বাণিজ্য, বিনিয়োগ, সাংস্কৃতিক এবং নিরাপত্তা চুক্তি হয়েছে।
 
দীর্ঘ ২৪ বছর পর বুধবার উত্তর কোরিয়ায় সফরে যান রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। দুই দেশের শীর্ষ বৈঠকের শুরুতে কিম ইউক্রেনের সঙ্গে যুদ্ধে রাশিয়াকে পূর্ণ সমর্থন এবং রাশিয়ার সব নীতিতে নিঃশর্ত সমর্থন প্রকাশ করেন। এ সময় পুতিন বলেন, যুক্তরাষ্ট্র ও এর মিত্রদের সাম্রাজ্যবাদী ও আধিপত্যবাদী নীতির বিরুদ্ধে যুদ্ধ করছে তার দেশ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.