নাটোরে আবারও আওয়ামী লীগ-বিএনপি পাল্টাপাল্টি সমাবেশ ডাকায় শহরে আতঙ্ক

0
86
নাটোর শহরের আলাইপুরে বিএনপির কার্যালয়ের সামনে কাল শনিবার সমাবেশ করার ঘোষণা দিয়েছে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি। আজ শুক্রবার সকালে

নাটোরে একই দিনে একই স্থানে আবার পাল্টাপাল্টি সমাবেশ করার ঘোষণা দিয়েছে প্রধান দুই রাজনৈতিক দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপি। আগামীকাল শনিবার শহরের আলাইপুরে বিএনপি কার্যালয়ের সামনের এ কর্মসূচিকে ঘিরে সংঘাত-সংঘর্ষের আশঙ্কা বিরাজ করছে। কর্মসূচি পালনে দুই দলই অনড় অবস্থান নেওয়ায় শহরে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে।

এর আগে গত ১ এপ্রিল একই এলাকায় একই দিনে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি পাল্টাপাল্টি সমাবেশের আয়োজন করেছিল। সেদিনের কর্মসূচি ঘিরে দুই দলের নেতা-কর্মীদের মধ্যে ব্যাপক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

পাল্টাপাল্টি কর্মসূচির বিষয়ে জানতে চাইলে নাটোরের পুলিশ সুপার সাইফুর রহমান বলেন, যেকোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা রোধে মাঠে কঠোর অবস্থানে থাকবে পুলিশ। কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না।

জেলা বিএনপি সূত্রে জানা গেছে, পূর্বঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে বিএনপি আগামীকাল সকালে শহরের আলাইপুরে তাঁদের অস্থায়ী কার্যালয়ের সামনে সমাবেশ আহ্বান করেছে। বিএনপির কার্যালয়টি দলের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদারের বাসভবনের নিচতলায় অবস্থিত। এ কর্মসূচিতে প্রধান অতিথি হিসেবে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা হেলালুজ্জামান লালুর উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। এ ছাড়া সাংগঠনিক সম্পাদক রুহুল কুদ্দুস তালুকদারও বিশেষ অতিথি থাকবেন। কর্মসূচি সফল করার জন্য তাঁরা বিভিন্ন উপজেলা থেকেও কর্মী-সমর্থকদের আনার পরিকল্পনা নিয়েছেন।

জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম বলেন, কর্মসূচিতে তাঁরা কোনো সহিংসতা চান না। তাঁরা শান্তিপূর্ণভাবে কর্মসূচি পালন করতে চান। বিএনপি অফিসের সামনে কখনোই অন্য কোনো দল কর্মসূচি পালন করেনি। আওয়ামী লীগ যদি এখানে সমাবেশ করতে চায়, তাহলে সংঘাত অনিবার্য হয়ে পড়বে। তাঁরা অনুরোধ করছেন, আওয়ামী লীগ যেন গায়ে পড়ে সংঘাত সৃষ্টি না করে।

এদিকে আওয়ামী লীগের একাধিক নেতা জানান, গত সোমবার বিকেলে শহরের কানাইখালী পুরাতন বাসস্ট্যান্ডে দলীয় এক সভা থেকে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম আগামীকাল বিএনপি কার্যালয়ের সামনে মঞ্চ করে সমাবেশ করার ঘোষণা দেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে তাঁরা দলীয় কার্যালয়ে সভা করে সমাবেশ করার ব্যাপারে অনড় অবস্থান নিয়েছেন। আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও রিকশা শ্রমিক লীগ পৃথক ব্যানারে বিএনপি কার্যালয়ের আশপাশে কর্মসূচি পালন করবে বলে দলীয় সূত্র জানিয়েছে।

জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মালেক শেখ জানান, বিএনপির নৈরাজ্য দমনে দলীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে তাঁরাও শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি পালন করবেন।
জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি সিরাজুল ইসলাম বলেন, ‘বিএনপি নেতারা লাগামহীন হুমকি-ধমকি দিচ্ছেন। তাই আমাদের ছেলেরা নাটোরে বিএনপিকে মাঠে নামতে না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তারা রুহুল কুদ্দুস তালুকদারের বাড়ির সামনের রাজপথ দখলে রাখবে। তবে বিএনপি যদি কর্মসূচি প্রত্যাহার করে, আমরাও কর্মসূচি প্রত্যাহার করে নেব।’

শহরের বাসিন্দাদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, একই দিন একই স্থানে বড় দুটি রাজনৈতিক দল কর্মসূচি দেওয়ায় শহরে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। বিএনপি কার্যালয়টি শহরের আলাইপুরে প্রধান সড়কের পাশে। এ ছাড়া কার্যালয়টির তিন দিকেই অসংখ্য বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান, বড় তিনটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও বিদ্যুৎ অফিস রয়েছে। সংঘাত-সংঘর্ষ শুরু হলে পথচারীসহ এসব প্রতিষ্ঠানের সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা ক্ষতিগ্রস্ত হবেন।

স্থানীয় ব্যবসায়ী সেলিম হোসেন বলেন, ‘আমাদের নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে দুটি দল তাদের কর্মসূচির স্থান পুনর্নির্ধারণ করবে, এটাই আমাদের প্রত্যাশা।’

আলাইপুরের বাসিন্দা গোলাম কামরান বলেন, দুটি দলের নেতারা তাঁদের কর্মীদের কতটুকু নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন, তা নিয়ে বাসিন্দারা চিন্তিত। তাই নিরাপত্তা নিয়ে তাঁরা আতঙ্কিত।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.