ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পরীক্ষা ছাড়াই রিপোর্ট!

0
352
রি–এজেন্ট পরীক্ষা করছেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের কর্মকর্তারা।

উত্তরার রবীন্দ্র সরণির উত্তরা ক্রিসেন্ট হাসপাতাল ও উত্তরা ক্রিসেন্ট ডায়াগনস্টিক অ্যান্ড কনসালটেশন সেন্টারের অভিযান চালিয়েছে র‍্যাব-১, স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের একটি দল। আজ সোমবার নির্বাহী হাকিম সারওয়ার আলমের নেতৃত্ব এই অভিযান পরিচালিত হয়। এই সেন্টারে স্বাস্থ্য পরীক্ষা না করেই সার্টিফিকেট তৈরি করে রাখা, মেয়াদোত্তীর্ণ রি-এজেন্ট ব্যববহার এবং আমদানিনিষিদ্ধ ওষুধ বিক্রি করার প্রমাণ পেয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এসব অপরাধের কারণে প্রতিষ্ঠানটিকে ১৭ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।

ডায়াগনস্টিক সেন্টারের রি–এজেন্ট পরীক্ষা করছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

 

যথাযথভাবে পরীক্ষা না করেই তৈরি করে ফেলা হয়েছে রিপোর্ট।
ল্যাবে মেয়াদোত্তীর্ণ রি–এজেন্ট পান ভ্রাম্যমাণ আদালত।
ল্যাব থেকে পাওয়া মেয়াদোত্তীর্ণ রি–এজেন্ট।
মাইক্রোবায়োলিজ ল্যাবের লোকজনকে জেরা করছেন নির্বাহী হাকিম।
ডায়াগনস্টিক সেন্টারের ফার্মেসিতে পাওয়া গেছে আমদানি নিষিদ্ধ বিভিন্ন ওষুধ।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.