চট্টগ্রামে পশুর হাটে ড্রোন ব্যবহার করবে পুলিশ

0
502
চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ

কোরবানের পশুর হাট পর্যবেক্ষণে প্রথমবারের মতো ড্রোন ব্যবহার করার পরিকল্পনা হাতে নিয়েছে চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশ।

আজ শনিবার দুপুরে দামপাড়া পুলিশ লাইনের কনফারেন্স কক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান নগর পুলিশ কমিশনার মাহবুবর রহমান।

আসন্ন ঈদুল আজহাকে ঘিরে নিরাপত্তা ও ট্রাফিক ব্যবস্থাপনার প্রস্তুতির কথা জানাতে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

নগর পুলিশ কমিশনার বলেন, প্রতিটি পশুর হাটে আমাদের কন্ট্রোল রুম থাকবে। আগের মতো ওয়াচ টাওয়ার এবং সিসি ক্যামেরাও থাকবে। এর পাশাপাশি এবার নতুন সংযোজন হলো ড্রোন। ড্রোন ব্যবহার করে হাটগুলো পর্যবেক্ষণ করা হবে। পাশাপাশি সড়কে গরুবাহী ট্রাকগুলোকে তল্লাশি থেকে ছাড় দেওয়া হবে বলে জানান তিনি।

তিনি আরও বলেন, ঈদকে ঘিরে নগরীর নিরাপত্তায় পোশাকধারী পুলিশ সদস্যদের পাশাপাশি, গোয়েন্দা বিভাগ, বিশেষ শাখাসহ অন্যান্য সংস্থার সহযোগিতা নেওয়া হবে। পাশাপাশি বোম ডিসপোজাল ইউনিট ও কাউন্টার টেররিজম বিভাগকে অপেক্ষমাণ হিসেবে রাখা হবে বলেও জানান তিনি।

পশু পরিবহন ও হাটকে ঘিরে চাঁদাবাজি না করার জন্য হুঁশিয়ার করে দিয়ে মাহবুবর রহমান বলেন, ‘দুষ্কৃতকারী কোনো সমিতি বা সংগঠনের নামে চাঁদাবাজি করার কেউ সাহস করবেন না।’

অনুরোধের পরেও হাট ইজারা দেওয়ায় হতাশা
বিমানবন্দর সড়কে যানজট ও নগরবাসীর দুর্ভোগ নিরসনে স্টিল মিল ও সল্টগোলায় অস্থায়ী দুটি গরুর হাট ইজারা না দিতে অনুরোধ জানিয়ে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনকে চিঠি দিয়েছিল নগর পুলিশ। কিন্তু এরপরেও হাট দুটি ইজারা দেয় সিটি করপোরেশন।

এ বিষয়ে পুলিশ কমিশনারকে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, হাট দুটি ইজারা না দিতে আহ্বান করা হয়েছিল। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য, ঠিক সে জায়গায় না হলেও পাশের দুটি জায়গায় হাট ইজারা দেওয়া হয়েছে। যেটি তুলনামূলক কম হলেও বিমানবন্দর সড়কে বিশৃঙ্খলা তৈরি করবে।

মাহবুবর রহমান বলেন, ‘যানবাহনের শৃঙ্খলা রক্ষার দায়িত্ব শুধু ‍পুলিশের না। সড়ক ব্যবস্থাপনার দায়িত্ব সিটি করপোরেশনেরও। আশা করি, ইজারাদাররা সিটি করপোরেশনের নির্ধারিত চৌহদ্দি মানবে।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.