সড়কে প্রাণ গেল সাব-রেজিস্ট্রার নুসরাত ও তার গৃহকর্মীর

0
440
নিহত নুসরাত জাহান । সংগৃহীত

গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জের বাস ও একটি মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই জনের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন কুড়িগ্রামের রাজারহাট উপজেলার সাব-রেজিস্ট্রার নুসরাত জাহান কুমু ও তার গৃহকর্মী জান্নাত খাতুন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও চারজন।

মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে ঢাকা-রংপুর মহাসড়কের গোবিন্দগঞ্জ চক্ষু হাসপাতাল এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

পুলিশ জানায়, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা রংপুরগামী সেবা ক্লাসিক পরিবহনের একটি যাত্রীবাহী বাস (ঢাকা-মেট্রো-ব-১২-১১৪৮) উপজেলার চক্ষুহাসপাতাল এলাকায় পৌঁছুলে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি মাইক্রোবাসের সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই নূসরাত জাহান কুমু (৩৫) এবং জান্নাত খাতুন (১১) নিহত হন। বাসের ধাক্কায় মাইক্রোবাসটির সামনের অংশ দুমরে-মুচড়ে যায়। গুরুতর আহত হন মাইক্রোবাস চালক ও নূসরাত জাহানের স্বামী আনিছুর রহমান এবং তার দুই শিশু সন্তান।

বাসের ধাক্কায় দুমরে-মুচড়ে যাওয়া মাইক্রোবাস ।

গোবিন্দগঞ্জ হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল কাদের জিলানী বলেন, সকালে সড়কে কোনো যানজট ছিলনা। ধারণা করা হচ্ছে, চালকের অসাবধানতার কারণেই এ দুর্ঘটনা ঘটেছে।

এদিকে রাজারহাট সাব-রেজিস্ট্রার অফিস সূত্রে জানা গেছে, নিহত নুসরাতের বাড়ি পিরোজপুর সদরের শিকারপুর গ্রামে। ২০১৮ সালের ১ নভেম্বর রাজারহাটে যোগদান করেন তিনি। তার স্বামী আনিছুর রহমান ঢাকার শাহজাজাল ইসলামী ব্যাংকের অফিসার পদে কর্মরত।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে