সেলিম প্রধানের বিরুদ্ধে দুই মামলা

0
192
বিপুল পরিমাণ মদ ও টাকাসহ সেলিম প্রধান ও তাঁর সহযোগী আক্তারুজ্জামানকে (লাল গেঞ্জি পরা) আটক করে র‍্যাব। গতকাল গুলশান-২-এ সেলিম প্রধানের কার্যালয়ে।

অনলাইন জুয়া ও ক্যাসিনো ব্যবসার হোতা সেলিম প্রধানের বিরুদ্ধে দুটি মামলা হয়েছে।

আজ বুধবার সকালে রাজধানীর গুলশান থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন ও মানি লন্ডারিং আইনে সেলিম প্রধানের বিরুদ্ধে দুটি মামলা করেছে র‍্যাব।

গুলশান থানা-পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) অনিন্দ্য তালুকদার বলেন, আজ সকালে র‍্যাবের পক্ষ থেকে সেলিম প্রধানের বিরুদ্ধে দুটি মামলা করা হয়।

গত সোমবার ব্যাংককগামী একটি ফ্লাইট থেকে সেলিম প্রধানকে নামিয়ে আনার পর তাঁকে আটক করে র‍্যাব। তাঁর দুই সহযোগী আক্তারুজ্জামান ও রোকনকেও আটক করা হয়। পরে সেলিম প্রধানের অফিস ও বাসায় অভিযান চালায় র‍্যাব।

র‍্যাব জানায়, অভিযানে সেলিমের কাছ থেকে ২৯ লাখ ৫ হাজার ৫০০ টাকা, ৭৭ লাখ ৬৩ হাজার টাকার সমপরিমাণ ২৩টি দেশের মুদ্রা, ১২টি পাসপোর্ট, ১৩টি ব্যাংকের ৩২টি চেক, ৪৮ বোতল বিদেশি মদ, একটি বড় সার্ভার, চারটি ল্যাপটপ ও দুটি হরিণের চামড়া উদ্ধার করা হয়েছে। হরিণের চামড়া উদ্ধারের ঘটনায় বন্য প্রাণী সংরক্ষণ নিরাপত্তা আইনে তাঁকে ছয় মাসের কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত।

সেলিম প্রধানের সব ব্যাংক হিসাবের লেনদেন গতকাল থেকে স্থগিত করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

র‍্যাব জানায়, তাদের সাইবার মনিটরিং সেলে দেখা যায়, কিছু অসাধু ব্যবসায়ী অনলাইনে ক্যাসিনো গেমিং করছিলেন। এ অনলাইন গেমিংয়ের প্রধান সমন্বয়ক সেলিম প্রধান। তিনি দেশ থেকে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে