সেনা কলোনি ত্যাগের নির্দেশ তালেবানের, হাজারো মানুষের বিক্ষোভ

0
53
কান্দাহারে বিক্ষোভে হাজারো মানুষ অংশ নেন। ছবি : রয়টার্স
তালেবান সদস্যরা যে এলাকাটি খালি করতে বলেছেন, সেটি মূলত অবসরে যাওয়া আর্মি জেনারেল ও আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর অন্য সদস্যদের বসবাসের এলাকা। এখানে কেউ কেউ ৩০ বছরের বেশি সময় ধরে বসবাস করে আসছেন। তাঁদের বাড়ি খালি করার জন্য তিন দিনের সময় বেঁধে দেওয়া হয়।

এ বিষয়ে তালেবানের মুখপাত্রের কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

গত মাসে তালেবান কাবুলের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর কোনো কোনো জায়গায় বিক্ষিপ্ত বিক্ষোভ হয়েছে। এসব বিক্ষোভের অধিকাংশই সহিংসভাবে শেষ হয়েছে। তবে গতকালের বিক্ষোভ ঘিরে কোনো সহিংসতার খবর পাওয়া যায়নি।

কান্দাহারে বিক্ষোভে অংশ নেন নারীরাও।

কান্দাহারে বিক্ষোভে অংশ নেন নারীরাও।
ছবি : রয়টার্স

তালেবান নেতারা যেকোনো ক্ষমতার অপব্যবহারের ঘটনা তদন্তের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। কিন্তু বিক্ষোভ করার আগে অনুমতি নেওয়ার কথাও বলেছেন তাঁরা।
গত শুক্রবার জাতিসংঘ বলেছে, শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভে তালেবানের প্রতিক্রিয়া ক্রমশ সহিংস হয়ে উঠছিল।

আফগান সরকারের সাবেক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট অনুসন্ধান করতে শুরু করেছে তালেবান। কোনো সরকারি কর্মকর্তা অবৈধভাবে সম্পদ অর্জন করেছেন কি না, তা তদন্ত করে দেখবে তারা। দ্য আফগানিস্তান ব্যাংকের কর্মকর্তা বলেছেন, এতে অনেক সাবেক সরকারি কর্মকর্তা, মন্ত্রী, আইনপ্রণেতার সম্পদ স্থগিত করে দেওয়া হতে পারে।

একটি প্রাইভেট ব্যাংকের কর্মকর্তা বলেছেন, তাঁদের সংস্থায় তালেবান অডিটরের একটি দল নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। তাঁরা নির্বাচিত সাবেক সরকারি কর্মকর্তাদের ব্যাংক হিসাব খতিয়ে দেখছেন।

আফগানিস্তানের সাবেক প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনির প্রশাসনের বিরুদ্ধে ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ ছিল। দাতা সংস্থার কয়েক শ কোটি মার্কিন ডলার সরকারি কর্মকর্তারা আত্মসাৎ করেছেন বলে গুঞ্জন রয়েছে। আশরাফ গনির বিরুদ্ধেও আবুধাবিতে দেশ ছেড়ে পালানোর আগে কয়েক লাখ ডলার সঙ্গে নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে।

গত মঙ্গলবার কয়েকজন তালেবান কর্মকর্তা তাঁদের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভিডিও পোস্ট করেন, যাতে পানশিরে সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট আমরুল্লাহ সালেহর বাসা থেকে কয়েক মিলিয়ন নগদ অর্থ ও স্বর্ণপাত্র উদ্ধার হওয়ার বিষয়টি দেখা যায়। ওই ভিডিও এএফপি যাচাই করে দেখেনি। তাতে তালেবান সদস্যদের মেঝেতে বসে একটি স্যুটকেসে ভরা অর্থ গুনতে দেখা যায়।

তালেবানের এক সদস্য বলেন, তালেবানের হাতে পানশিরের পতনের পর এক লাখ ডলার প্রথম দিনেই উদ্ধার করা হয়। পরে আরও ৬২ লাখ ডলার ও স্বর্ণপাত্র উদ্ধার করা হয়।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে