সিকিমে এসডিএফের ১০ বিধায়কের বিজেপিতে যোগদান

0
299
বিজেপি

উত্তর-পূর্ব ভারতের সিকিম রাজ্যের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী পবন চামলিংয়ের দলের ১০ জন বিধায়ক বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন। ফলে, বিধানসভায় তাঁর দল এসডিএফের আসন কমে দাঁড়িয়েছে ৫। আসন কমে যাওয়ায় রাজ্যে বিরোধী দলের মর্যাদা হারিয়েছে এসডিএফ। নতুন বিরোধী দলের মর্যাদা পেয়েছে বিজেপি।

গতকাল মঙ্গলবার বিজেপির সর্বভারতীয় কার্যকরী সভাপতি জে পি নাড্ডা ও সাধারণ সম্পাদক রাম মাধব সিকিমের এই ১০ বিধায়কের হাতে তুলে দেন দলীয় (বিজেপি) পতাকা।

সিকিমে রাজ্য বিধানসভার আসনসংখ্যা ৩২। সবশেষ নির্বাচনে পবন চামলিংয়ের দল সিকিম ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (এসডিএফ) পায় ১৫টি আসন। আর সিকিম ক্রান্তিকারী মোর্চা (এসকেএম) পায় ১৭ আসন। এসকেএমের এই জয়ে সিকিমে পবন চামলিংয়ের ২৫ বছরের বেশি টানা শাসনের অবসান ঘটে। ক্ষমতায় আসে এসকেএম।

সিকিম

রাজ্য বিধানসভা বা লোকসভা নির্বাচনে সিকিমে একটি আসনও পায়নি বিজেপি। কিন্তু এখন এসডিএফের ১০ বিধায়কের যোগদানের ফলে রাজ্য বিধানসভায় বিজেপির আসন ১০ হয়েছে। একই সঙ্গে তারা নতুন বিরোধী দলের মর্যাদা পেয়েছে। আর এসডিএফ হারিয়েছে বিরোধী দলের মর্যাদা।

পবন চামলিং ছিলেন ভারতের কোনো রাজ্যের প্রথম মুখ্যমন্ত্রী, যিনি একটানা ২৫ বছর ক্ষমতায় থাকার রেকর্ড গড়েন। ১৯৯৪ সাল থেকে তিনি মুখ্যমন্ত্রী পদে আসীন ছিলেন। তাঁর আগে পশ্চিমবঙ্গের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু একটানা প্রায় ২৪ বছর মুখ্যমন্ত্রী থেকে ভারতে ইতিহাস গড়েছিলেন। সেই ইতিহাস ভেঙে দিয়েছিলেন পবন চামলিং।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে