লস অ্যাঞ্জেলেসে মঞ্চ মাতাল টনি পরিবার

0
566
মঞ্চে টনি ডায়েস ও প্রিয়া ডায়েসের নৃত্য পরিবেশনা মুগ্ধ করে দর্শকদের।

লস অ্যাঞ্জেলেসে হয়ে গেল দুই দিনব্যাপী মেগা বিনোদন আসর আনন্দ মেলা। মেলার আয়োজক বাংলাদেশি আমেরিকান অ্যাসোসিয়েশন অব লস অ্যাঞ্জেলেস। তরুণ কমিউনিটি সংগঠক মোহাম্মদ আলী খানের নেতৃত্বে একঝাঁক তরুণ কর্মীর ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় লস অ্যাঞ্জেলেসের বাংলা বিনোদন আসর ‘আনন্দমেলা লস অ্যাঞ্জেলেস’ আয়োজন করা হয়।

মেলা অনুষ্ঠিত হয় ২৭ ও ২৮ জুলাই। মেলার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সিটি কাউন্সিল প্রেসিডেন্ট হারব ডে ওয়েসন জুনিয়র। বিশেষ অতিথি ছিলেন কনসাল জেনারেল প্রিয়তোষ সাহা ও আনন্দমেলা প্রেসিডেন্ট মোয়াজ্জেম হোসেন। আনন্দমেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন কংগ্রেসওমেন জুডি চু।

ভার্জিল মিডল স্কুল মাঠে দুপুর থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত চলে এই আনন্দমেলা। দুই দিনব্যাপী মেলায় প্রায় ৬ হাজার দর্শনার্থীর সমাগম ঘটে। মেলায় লস অ্যাঞ্জেলেসের স্থানীয় শিল্পী ছাড়াও বাংলাদেশের জনপ্রিয় সেলিব্রিটি শিল্পীরা অংশ নেন। সবার প্রাণবন্ত পরিবেশনা দর্শকদের মুগ্ধ করে।

গান করছেন অহনা ডায়েস।

উপস্থিত ছিলেন বর্তমান সময়ের ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় অভিনেতা আরেফিন শুভ, ইমন, মডেল মোনালিসা, সংগীতপরিচালক ইমন সাহা, কৌতুক অভিনেতা আবু হেনা রনি প্রমুখ। এর বাইরে টনি ডায়েস ও প্রিয়া ডায়েস জুটি ও তাঁদের মেয়ে অহনা ডায়েসের পারফরম্যান্স ছিল অনবদ্য। টনি ডায়েসকে সবাই একজন অভিনেতা হিসেবেই চেনেন। কিন্তু মেলায় সিনেমার গানের সঙ্গে তাঁর পারফরম্যান্স দর্শকদের মুগ্ধ করে। টনি ডায়েস বলেন, আসলে প্রিয়া ডায়েস খুব ভালো কোরিওগ্রাফার। যেকোনো শিল্পীকে খুব সহজেই তৈরি করতে পারেন। আমেরিকার বিভিন্ন অঙ্গরাজ্যে টনি ডায়েস পারফর্ম করলেও লস অ্যাঞ্জেলেসে প্রথমবারের মতো মঞ্চ মাতালেন। শুধু তিনি একা নন, তাঁর স্ত্রী, সন্তানের পরিবেশনাও দর্শকদের বিমোহিত করে। বিশেষ করে অহনা ডায়েসের গান ৪ হাজার দর্শককে মুগ্ধ করে রাখে।

এর আগে ২০১০ সালে ওয়াশিংটন ডিসিতে টনি ডায়েস পরিবারের তিন সদস্যই একটি শোতে অংশ নেন। প্রিয়া ডায়েস স্বামী টনির সঙ্গে নাচের পাশাপাশি এককভাবে কত্থক পরিবেশন করেন, যা দর্শক বেশ উপভোগ করেছিল।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে