রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াবে যেসব খাবার

0
178

অসুস্থ হলে বেশিরভাগ মানুষই ওষুধের মাধ্যমে তা নিরাময়ের চেষ্টা করেন। কিন্তু এমন অনেক ধরনের অসুখ আছে যে গুলো দূর করতে সবসময় ওষুধের প্রয়োজন হয় না। আমরা প্রায়ই ভুলে যাই প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় যেসব খাবার থাকে সে গুলোর পুষ্টি উপাদান আমাদের সুস্থ থাকতে কতটা সাহায্য করে! তবে অতিরিক্ত চর্বিযুক্ত, লবণাক্ত এবং মিষ্টি খাবার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা দুর্বল করে একজনকে অসুস্থ করে তুলতে পারে। যে খাবারগুলো রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সাহায্য করে সে গুলো হচ্ছে-

বিট : বিটে পর্যাপ্ত পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট থাকায় এটি হৃদরোগ, ক্যান্সার এবং বিভিন্ন ধরনের প্রদাহ থেকে শরীরকে সুরক্ষা করে। প্রাকৃতিকভাবেই বিট স্বাদে মিষ্টি ধরনের একটি সবজি। এতে পর্যাপ্ত পরিমাণে ভিটামিন সি ও ফাইবার থাকায় এটি হজমের জন্য উপকারী। নিয়মিত খাদ্য তালিকায় বিট রাখলে এটি নানা ধরনের রোগ প্রতিরোধে সাহায্য করবে।

প্রাকৃতিক অ্যান্টিবায়োটিক : বিভিন্ন অসুখের বিরুদ্ধে লড়াই করতে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে হবে। এজন্য নিয়মিত প্রাকৃতিক অ্যান্টিবায়োটিক খাওয়া জরুরি। সুস্থ থাকতে দিনের খাদ্য তালিকায় নিয়মিত ভিটামিন সি যুক্ত খাবার, রসুন, পেঁয়াজ, ডালিম, মধু, দারুচিনি, অ্যাপেল সিডার ভিনেগার যোগ করুন।

হলুদের লেমোনেড : হলুদ মিশ্রিত পানি শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। এজন্য নিয়মিত একটি মিশ্রণ তৈরি করে খেতে পারেন। চার কাপ পরিস্কার পানিতে চার চামচ মধু যোগ করুন। এবার এতে ২ টেবিল চামচ হলুদ গুঁড়া কিংবা বাটা হলুদ এবং আধা চামচ লেবুর রস দিন। চাইলে মিশ্রণটিতে সামান্য কমলার রসও দিতে পারেন। নিয়মিত এ মিশ্রণট পান করলে প্রাকৃতিকভাবেই শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।

তিসির বীজ : তিসিতে প্রচুর পরিমাণে স্বাস্থ্যকর ফ্যাট, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং ফাইবার রয়েছে। এতে থাকা বিভিন্ন পুষ্টি উপাদান ডায়াবেটিস, ক্যান্সার এবং হৃদরোগের ঝুঁকি কমায়। খাবার কিংবা পানীয়র সঙ্গে মিশিয়ে এ খাবারটি খেতে পারেন। এতে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে। সূত্র: হেলদিবিল্ডার্জড

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে