মুখ্যমন্ত্রীর মমতা অভিনন্দনের পেলেন সৌরভ

0
210
মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে সৌরভ। ছবি : ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অব বেঙ্গল
বিসিসিআইয়ের সভাপতি হওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে অভিনন্দনের জোয়ারে ভেসে যাচ্ছেন সাবেক ভারত অধিনায়ক সৌরভ গাঙ্গুলি। অভিনন্দন দেওয়ার তালিকায় যুক্ত হয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

বিসিসিআইয়ের সভাপতি হিসেবে সৌরভ গাঙ্গুলিকে নির্বাচন করা হয়েছে। আনুষ্ঠানিক ঘোষণা না আসলেও গত রাতেই বিভিন্ন গণমাধ্যম এ ব্যাপারে পাকা খবর দিয়ে দিয়েছে। খবর শুনে সৌরভকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে অভিনন্দন জানিয়েছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

গতকাল রাতে মুম্বাইয়ে এক বেসরকারি সভায় সভাপতি পদে চূড়ান্ত হয়েছে সাবেক এই অধিনায়কের নাম। আর সে খবর শুনে সৌরভকে অভিনন্দন জানিয়েছেন গর্বিত মুখ্যমন্ত্রী। তিনি লিখেছেন, ‘ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি পদে সর্বসম্মতভাবে নির্বাচিত হওয়ার জন্য সৌরভকে অভিনন্দন জানাই। সৌরভ ও তাঁর দলের প্রতি অনেক অনেক শুভকামনা। ভারত ও পশ্চিমবঙ্গকে গর্বিত করেছ তুমি। বেঙ্গল ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি হিসেবেও তোমার কাজে গর্বিত আমরা সবাই। এই মাঠেও তোমার দুর্দান্ত আরেকটা ইনিংসের অপেক্ষায় থাকলাম আমরা।’ অভিনন্দন জানাতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারকে বেছে নিয়েছেন মমতা।

রোববারের সভায় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সঙ্গে দেশটির অন্যান্য রাজ্যের বোর্ডগুলোর সদস্যরা সৌরভকে বোর্ড প্রেসিডেন্ট করার বিষয়টি চূড়ান্ত করেন। সৌরভ গাঙ্গুলি বর্তমানে ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অব বেঙ্গল-এর প্রেসিডেন্ট পদে দায়িত্ব পালন করছেন। এর আগে ভারতীয় ক্রিকেট দলের অন্যতম সফল এই অধিনায়ক বিসিসিআইয়ের টেকনিক্যাল কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে কাজ করেছেন।

২৩ অক্টোবর থেকে দায়িত্ব বুঝে নেবেন সৌরভ। আজ সোমবার এর মধ্যে মনোনয়নপত্র জমা দিয়ে দিয়েছেন। মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় সৌরভের সঙ্গে ছিলেন শ্রীনিবাসন, রাজীব শুক্লা, নিরঞ্জন শাহের মতো বোর্ড সদস্যরা। নতুন দায়িত্বকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে দেখছেন সৌরভ। তবে এই পদে আগামী বছরের জুলাই পর্যন্ত থাকার কথা তাঁর। তারপর যেতে হবে তিন বছরের কুলিং অফ পিরিয়ডে। লোধা সংস্কার অনুযায়ী বোর্ড বা রাজ্য সংস্থার পদে টানা ছয় বছরের বেশি থাকার নিয়ম নেই।

এখন অপেক্ষা শুধু আনুষ্ঠানিক ঘোষণার।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে