মাঠে অনবদ্য বার্নস, তাঁর ভাই জবাব দিলেন ওয়াহকে

0
372
ধৈর্য ও একাগ্রতায় দারুণ এক ইনিংস খেলেছেন রোরি বার্নস। ছবি: এএফপি

এজবাস্টন টেস্টে কাল সেঞ্চুরি করেছেন ইংল্যান্ডের বাঁ হাতি ওপেনার রোরি বার্নস। অথচ এ ব্যাটসম্যানকেই কিছুদিন আগে ‘নাইটওয়াচম্যান’ বলেছিলেন মার্ক ওয়াহ। বার্নস সেঞ্চুরি তুলে নেওয়ার পর অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ওপেনারকে ধুয়ে দিয়েছেন তাঁর ভাই এবং ক্রিকেটপ্রেমীরা

অ্যাশেজ অভিষেকেই সেঞ্চুরি! সেটি আবার দেশের হয়েও প্রথম সেঞ্চুরি। আর সেঞ্চুরির ধরনটাও এমন যে মাইকেল ভন নিজেকে ধরে রাখতে পারেননি। সাবেক ইংল্যান্ড অধিনায়কের টুইট, ‘এটাকে বলে নিখাদ টেস্ট ম্যাচ সেঞ্চুরি। অবিশ্বাস্য টেকনিক ও মানসিকতা।’ শুধু তাই নয় আরেকটি টুইটে ভন লিখেছেন, ‘অনেক অনেক দিন পর ইংল্যান্ডের এমন সেরা দিনের টেস্ট ব্যাটিং দেখলাম।’

ভনের এ প্রশংসা রোরি বার্নসের জন্য। কাল এজবাস্টন টেস্টের দ্বিতীয় দিনে অস্ট্রেলিয়া পুড়েছে বার্নসের ধৈর্য ও মনঃসংযোগের আগুনে। সারা দিন ব্যাট করে ২৮২ বলে ১২৫ রান নিয়ে অপরাজিত আছেন এ ওপেনার। ব্যাট করেছেন চার শ মিনিটেরও বেশি সময়। ৩৪ বছর পর অ্যাশেজ অভিষেকেই সেঞ্চুরির নজির দেখা গেল বার্নসের দুর্দান্ত এ ইনিংসটির কল্যাণে। অথচ এ ব্যাটসম্যানকেই ‘নাইটওয়াচম্যান’ বলেছিলেন মার্ক ওয়াহ!

অ্যাশেজে নামার আগে আয়ারল্যান্ডের সঙ্গে চার দিনের টেস্ট খেলেছে ইংল্যান্ড। সে ম্যাচে দুই ইনিংস মিলিয়ে মাত্র ১২ রান করতে পেরেছিলেন বার্নস। সারের এ অধিনায়ককে নিয়ে অস্ট্রেলিয়ার সাবেক ওপেনার টু্ইট করেছিলেন, ‘কথাটা চাঁচাছোলা হয়ে যায় কিন্তু রোরি বার্নসকে দেখে নাইটওয়াচম্যান মনে হয়েছে। সে অ্যাশেজে খেলার সুযোগ পাবে বলে মনে করি না।’ বার্নসের ব্যাটিং টেকনিক বাকিদের চেয়ে বেশ আলাদা। দ্বিতীয় এমনকি তৃতীয় স্লিপের দিক থেকেও ব্যাট নামিয়ে থাকেন। স্কাই স্পোর্টসের ক্রিকেট পণ্ডিতদের চোখে, বার্নসের ব্যাটিং দেখে চোখ জুড়ায় না। আর অ্যাশেজে তাঁর ইংল্যান্ড দলে সুযোগ পাওয়া নিয়েও কথা উঠেছিল।

মার্ক ওয়াহর টুইটের জবাবে বার্নসের ভাইয়ের টুইট। ছবি: টু্ইটারমার্ক ওয়াহর টুইটের জবাবে বার্নসের ভাইয়ের টুইট। ছবি: টু্ইটার

তবে মাঠে সবার চোখ জুড়ানোর দায়িত্ব তো আর বার্নসের না। উইকেটে ‘কচ্ছপ কামড়’ দিয়ে পড়ে থেকে দলকে নিরাপদ জায়গায় পৌঁছে দেওয়াই টেস্টে যেকোনো ব্যাটসম্যানের প্রধান দায়িত্ব। বার্নস সে কাজটাই করেছেন অতীত থেকে শিক্ষা নিয়ে। প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে ফিফটিকে সেঞ্চুরিতে পরিণত করায় সেভাবে হাত পাকেনি বার্নসের। মোট ৬২টি পঞ্চাশোর্ধ্ব ইনিংসের মধ্যে সেঞ্চুরিতে রূপ দিতে পেরেছেন মাত্র ১৬টি। আর এ বছরের জানুয়ারিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টেস্টে অল্পের জন্য সেঞ্চুরি করতে না পারার দুঃখ তো আছেই। এসব ভুল থেকে শিক্ষা নিয়েই কাল সবচেয়ে কঠিন সময়ে বার্নস দেখিয়েছেন ধৈর্য কাকে বলে!

‘নার্ভাস নাইন্টিজ’ যেকোনো ব্যাটসম্যানের জন্যই কঠিন সময়। আর সেটি নিয়ে আসে প্রথম টেস্ট সেঞ্চুরির সুবাস তাহলে তো কথাই নেই। কাল বার্নস এই ‘নার্ভাস নাইন্টিজ’-এর পথটুকু পার হয়েছেন ১০ ওভারের বেশি সময় নিয়ে। ৯৯ থেকে ১০০-তে যেতে খেলেছেন ৯ বল। কৌশলগত দিক থেকে আত্মবিশ্বাসী ব্যাটসম্যান না হলে এমন ইনিংস খেলা প্রায় অসম্ভব। অথচ কাল বার্নসের এ ইনিংসের মাঝপথেও তাঁর সমালোচনা করে টুইট করেছেন ওয়াহ ‘…বার্নস নিজের গর্খুঁড়ছেছে।’

কিন্তু এ ব্যাটসম্যানই দ্বিতীয় দিন পার করে দেওয়ার পর সমালোচনার মুখে পড়েন জুনিয়র ওয়াহ। তাঁর উদ্দেশে বার্নসেরই ভাই লিয়াম বার্নসের টুইট, ‘থামো তো মার্ক, সে মানসম্পন্ন, বুদ্ধিমান এবং অবশ্যই তোমাদের পেস সামলানোর মতো মেরুদণ্ড তার আছে। খুব কম সময়ই সে অফ ফর্মে থাকে। প্রয়োজনমতো জ্বলেও ওঠে।’ এ তো গেলে বার্নসের ভাইয়ের জবাব। ইংলিশ ক্রিকেটপ্রেমীরা স্রেফ ধুয়ে দিয়েছেন ওয়াহকে। এক ভক্তের জবাব, ‘মিঠে শব্দ বানাও। হয়তো এগুলো তোমাকে গিলতেও হতে পারে।’

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে