মাঝ যমুনায় নৌকায় কিশোরীকে ধর্ষণ, উদ্ধার ফায়ার সার্ভিসের।

0
444
ছবি:প্রতিকী।

বগুড়ার সারিয়াকান্দিতে ধর্ষণের শিকার ১৫ বছরের এক কিশোরীকে অসুস্থ অবস্থায় যমুনা নদীতে ভাসমান একটি নৌকা থেকে উদ্ধার করেছে স্থানীয় ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা। তাকে সারিয়াকান্দি উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয় ফায়ার সার্ভিস অফিসের স্টেশন অফিসার আল আমিন জানান, দুপুরে যমুনা নদীতে ফুটবল খেলার সময় নিখোঁজ দুই ভাইকে উদ্ধার অভিযানে নৌকা যোগে যাওয়ার পথে  মেয়েটি ১টি নৌকার মধ্যে থেকে বাঁচাও বাঁচাও বলে চিৎকার করলে তাকে উদ্ধার করে পুলিশের হেফাজতে দেয়া হয়েছে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ওই কিশোরী জানায়, সে তার প্রেমিক সারিয়াকান্দির নারচী এলাকার শামিমের সঙ্গে যমুনা নদীতে ঘুরতে আসে। পরে ১টি নৌকা ভাড়া নিয়ে ঘুরে বেড়ানোর সময় নৌকার মধ্যেই শামিম তাকে ধর্ষন করে একটি চরে নিয়ে যায়। সেই চরে আরও ৩/৪ জন যুবক তাদের ঘিরে ফেলে। এক সময় একাই তাকে নৌকায় উঠিয়ে দেওয়া হয়।

সারিয়াকান্দি থানার এসআই সুব্রত কুমার ঘোষ জানান, ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা মেয়েটিকে উদ্ধার করেছ। সারিয়াকান্দি হাসপাতালে পুলিশ হেফাজতে মেয়েটির চিকিৎসা চলছে। ধর্ষককে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

হাসাপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান, মেয়েটি জানিয়েছে তাকে ধর্ষণ করা হয়েছে। শারীরিক পরীক্ষার জন্য তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.