ভারতের সঙ্গে রেল যোগাযোগ বন্ধের ঘোষণা পাকিস্তানের

0
464
ওয়াগাহ সীমান্তে তিন ঘণ্টা আটকে ছিল ‘সমঝোতা এক্সপ্রেস’ ট্রেন। ছবি: টুইটার থেকে নেওয়া

পাকিস্তান ও ভারতের মধ্যে চলাচলকারী ট্রেন সমঝোতা এক্সপ্রেস বন্ধের ঘোষণা দিয়েছে ইসলামাবাদ। পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী সংবাদ সম্মেলন করে এই ট্রেন চলাচল বন্ধের কথা জানান।

আজ বৃহস্পতিবার পাকিস্তান থেকে ভারতগামী ট্রেন ‘সমঝোতা এক্সপ্রেস’ সীমান্তে তিন ঘণ্টা আটকে ছিল। ট্রেনটি ওয়াগাহ সীমান্তে পৌঁছানোর পর তা আটকে থাকে।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, যাত্রী নিয়ে পাকিস্তানের লাহোর থেকে আসা ‘সমঝোতা এক্সপ্রেস’ বৃহস্পতিবার বেলা একটার দিকে ওয়াগাহ সীমান্ত পৌঁছায়। তখন ইসলামাবাদ রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ এই ট্রেনটির চলাচল বন্ধের ঘোষণা দেয়। পাকিস্তানের ট্রেন চালক ও সংশ্লিষ্টরা এই ট্রেন নিয়ে ভারতে ঢুকতে অস্বীকৃতি জানায়। তাঁদের দাবি, ভারতীয় এলাকায় ভারতীয়দের এসে ট্রেন চালিয়ে সীমানা অতিক্রম করা উচিত। সীমান্তে প্রায় তিন ঘণ্টা ট্রেনটি আটকে থাকার পর ভারতীয় দল ট্রেন চলাচলের নিয়ন্ত্রণ নেয়। অতঃপর ট্রেনটি আটারির পথে যাওয়া শুরু করে।

সংবাদ রয়টার্স জানায়, পাকিস্তানের রেলমন্ত্রী শেখ রাশেদ আজ সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, ‘আমরা সমঝোতা এক্সপ্রেস বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। কাশ্মীর নিউয়ে উদ্ভূত পরিস্থিতে এই ট্রেন আর চলতে পারে না।’

এ দিকে কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা কেড়ে নেওয়ার প্রতিবাদ করায় কাশ্মীর থেকে অন্তত তিন শ জনকে আটক করা হয়েছে। আটকদের মধ্যে রাজনীতিবিদ, সংগঠক, ব্যবসায়ী নেতা ও অধ্যাপক রয়েছেন।

প্রসঙ্গত, ৫ আগস্ট ভারতের সংবিধানের ৩৭০ ধারা বিলোপ করে কাশ্মীরের ‘বিশেষ মর্যাদা’ বাতিল করা হয়। ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীর দুই ভাগে বিভক্ত হয়ে যায় এবং কাশ্মীরকে কেন্দ্রীয় সরকারে শাসনের আওতায় আনা হয়। এরপর থেকেই কাশ্মীরজুড়ে ছড়িয়ে পড়েছে উত্তেজনা।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.