বিমান বন্দরে সোনা জব্দ ৭ কেজি ১৯০ গ্রাম

0
187
সোনা

হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আজ শনিবার দুটি আলাদা ঘটনায় প্রায় সোয়া সাত কেজি সোনা জব্দ করা হয়েছে। এর মধ্যে একটি ঘটনায় বিমানের এক কর্মীকে আটক করা হয়েছে।

জব্দ হওয়া সোনার মূল্য ৩ কোটি ৬০ লাখ টাকা।

ঢাকা কাস্টম হাউসের সহকারী কমিশনার সাজ্জাদ হোসেন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে চোরাচালান প্রতিরোধে কাস্টম হাউস, ঢাকার কর্তব্যরত প্রিভেন্টিভ কর্মকর্তাগণ বিমান বন্দরের বিভিন্ন পয়েন্টে অবস্থান নিয়ে নজরদারি করতে থাকে। নজরদারি ও তল্লাশির একপর্যায়ে বোর্ডিং ব্রিজ নং-৬ এ সকাল ৬টা ১০মিনিটে দুবাই থেকে আসা বাংলাদেশ বিমানের উড়োজাহাজ গাঙচিলের একটি আসনের নিচ থেকে সোনার ৪০টি বার পাওয়া যায়। এগুলোর মোট ওজন ৪ কেজি ৬৪০ গ্রাম।

এর পর বেলা তিনটায় আমদানি কার্গো কমপ্লেক্সের বহিরাংশ সংলগ্ন রানওয়ে এলাকায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের এয়ারক্রাফট টেকনিক্যাল হেলপার মো. মেহেদি হাসানের গতিবিধি সন্দেহজনক হওয়ায় প্রিভেন্টিভ কর্মকর্তারা তাঁকে চ্যালেঞ্জ করেন। পরে তাঁকে কাস্টমস ব্যাগেজ কাউন্টারে আনা হয়। বিমান বন্দরে কর্মরত বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধির উপস্থিতিতে তাঁর শরীর তল্লাশি করা হলে তাঁর কোমরে লুকানো অবস্থায় কালো স্কচটেপ দিয়ে মোড়ানো দুটি বান্ডিলে ২২টি সোনার বার পাওয়া যায়; যার মোট ওজন ২ কেজি ৫৫০ গ্রাম। জব্দ করা সোনার মোট ওজন ৭ কেজি ১৯০ গ্রাম এবং আনুমানিক বাজার মূল্য ৩ কোটি ৬০ লাখ টাকা।

স্বর্ণ বহনকারী বিমান কর্মীকে পুলিশে সোপর্দকরণের প্রক্রিয়া চলছে। জব্দ সোনার বিষয়ে কাস্টমস আইনে ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে