বার্ধক্য জনিত কারণে নীহার বালা দেওয়ান এর মৃত্য

0
2305
চার বোনের মধ্যে তিন বোনের ছবি।বড়বোন বীরবালা দেওয়ান, মাঝখানে নীহারবালা দেওয়ান ও মেজবোন লালনা দেওয়ান।

জুরাছড়ি উপজেলার সাবেক চেয়ারম্যান প্রবর্তক চাকমার মা ও ভূবন জয় চাকমার (যক্ষা মহাজনের) স্নেহাস্পদ পুত্রবধু নীহার বালা দেওয়ান বার্ধক্য জনিত কারণে পরলোকগত হয়েছেন।

গতকাল ভোর রাতে ৩:৫৫ মিনিটে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। মৃত্যকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮৬ বছর।

স্বামী সুধাকর চাকমা অনেক আগেই গত হয়েছেন।তাঁর সুযোগ্য তিনপুত্র প্রবর্তক চাকমা সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান, সুশান্ত চাকমা রাঙ্গামাটি সরকারী উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক পদে ও প্রচারক চাকমা জুরাছড়ি স্বাস্থ্য বিভাগে কর্মরত রয়েছেন।  পূণ্যবতী নীহার বালা দেওয়ান মৃত্যকালে নাতি নাতনি,আত্মীয় স্বজনসহ অসংখ্য গুণগ্রহী রেখে গেছেন।

দীঘিনালা উপজেলার পাবলাখালী মৌজার প্রাক্তন হেডম্যান চন্দ্রজিত দেওয়ানের অত্যন্ত আদরের ও সর্বকনিস্থ কন্যা ছিলেন তিনি। এক ভাই চারবোনের মধ্যে সবার ছোট এবং আদরের ছিলেন।সবার বড় ভাই প্রফুল্ল দেওয়ান (সাবেক হেডম্যান),বড়বোন প্রফুল্ল বালা দেওয়ান, বীরবালা দেওয়ান, লালনা দেওয়ান ও নীহারবালা দেওয়ান।

১৯৫৫ সালে এক শুভক্ষণে শুধাকর চাকমার সাথে তিনি বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।

জীবদ্দশায় ভূবন জয় সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় ও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ জুরাছড়ি বনবিহারের জন্য জায়গা দান করে গেছেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে