পুলিশের উপর হামলা, পিস্তল ও গুলিসহ আটক ৩

0
435
পুলিশের হাতে আটক-আমির হোসেন (১৬),অভিজিৎ হালদার রিংকু (২২),

রাজশাহীতে পুলিশের ওপর অস্ত্রসহ হামলার ঘটনা ঘটেছে। হামলায় পুলিশের সহকারী পরিদর্শক (এএসআই) মাইনুল ইসলাম আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টার দিকে নগরীর কাদিরগঞ্জ এলাকায় এই হামলার ঘটনা ঘটে। হামলায় জড়িত তিন শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। তল্লাশি চালিয়ে তাদের কাছ থেকে বিদেশি পিস্তল, চার রাউন্ড গুলি ও একটি ছুরি পাওয়া যায়।

আটকরা হলেন- নগরীর কয়েরদাঁড়া এলাকার খলিলুর রহমানের ছেলে আমির হোসেন (১৬), নগরীর সপুরা পবাপাড়া এলাকার রণজিৎ হালদারের ছেলে অভিজিৎ হালদার রিংকু (২২), সাহেববাজার মাস্টারপাড়া এলাকার এমাজ উদ্দিনের ছেলে মোবারক হোসেন (১৭)। এদের মধ্যে রিংকু রাজশাহী কলেজের বিবিএস (ডিগ্রি) প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। মোবারক টেকনিক্যাল ট্রেনিং সেন্টারের দশম শ্রেণির ছাত্র ও আমির নওহাটা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্র।

বোয়ালিয়া ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নিবারণ চন্দ্র বর্মন জানান, নগরীর কাদিরগঞ্জ এলাকায় সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে দায়িত্ব পালন করছিলেন এএসআই মাইনুল ইসলাম। সকাল সাড়ে ১১টার দিকে তিন শিক্ষার্থী রিকশায় চড়ে সাহেববাজার এলাকার দিকে যাচ্ছিলেন। তাদের আচরণ সন্দেহজনক হওয়ায় পুলিশ তাদের রিকশা থামিয়ে তল্লাশি শুরু করে। এসময় একজন ছুরি বের করে এএসআই মাইনুলের হাতে আঘাত করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে তাদের সেখানকার কন্সটেবলরা ধরে ফেলে। এসময় তাদের আবারও তল্লাশি করে তাদের কাছে একটি পিস্তল, গুলি ও ম্যাগজিন উদ্ধার করা হয়।

ওসি আরো জানান, আটক শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে থানায় অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে। তারা অস্ত্র ব্যবসায়ী না ছিনতাইকারী দলের সদস্য তা জানার চেষ্টা চলছে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে