দর্শকের কটূক্তিতে মেজাজ হারালেন মুশফিক

0
201
কটূক্তি করা সেই দর্শকের সঙ্গে কথা বলছেন মুশফিক।

ভারত সফরের প্রস্তুতি হিসেবে আজ শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে নিজেদের মধ্যে দুটি দল করে টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ দল। লাল দল-সবুজ দলের এ ম্যাচে ঘটেছে অপ্রীতিকর এক ঘটনা। আউট হয়ে ড্রেসিং রুমে ফেরার সময় এক দর্শকের কটুক্তিতে ক্ষিপ্ত হয়ে গ্যালারির গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডে উঠে যান মুশফিক। বিসিবির নিরাপত্তাকর্মীদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি শান্ত হয় এবং সেই দর্শককে স্টেডিয়াম থেকে বের করে দেওয়া হয়।

লাল দলের হয়ে ব্যাট করছিলেন মুশফিক। সবুজ দলের স্পিনার আরাফাত সানির বলে রিভার্স সুইপ করতে গিয়ে মাত্র ৪ রানে আউট হন তিনি। মাথা নিচু করে নিজের ব্যাটের দিকে তাকিয়ে মুশফিক ফিরছিলেন ড্রেসিংরুমে। ব্যাটিংয়ের প্রস্তুতি মনমতো না হওয়ার হতাশা ছিল চোখে-মুখে। ড্রেসিংরুমের কাছাকাছি আসতে তাঁকে কটূক্তি করেন এক দর্শক। ব্যাট, হেলমেট ড্রেসিংরুমের দরজায় রেখে গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডের প্রাচীর টপকে মুশফিক তেড়ে যান ইমরান হোসেন নামের সেই দর্শকের দিকে। গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডে গিয়ে ধমকেছেন কটূক্তি করা দর্শককে।

মুশফিক আউট হওয়ার পর তাঁকে উদ্দেশ করে দর্শকের মন্তব্য ছিল, ‘ব্যাটে তাকিয়ে কী করবেন। আমাকে দেখেন।’ তর্জনী তুলে মুশফিক জবাব দিয়েছেন, ‘তোমাকে দেখে কী করব! এ রকম আর করবেন না।’ এরপর বিসিবির নিরাপত্তাকর্মীরা ইমরানকে গ্যালারি থেকে বের করে দেন। ইমরান অবশ্য দোষ স্বীকার করেননি। তাঁর দাবি, ‘আমি শুধু মাথা উঁচু করে যেতে বলছিলাম ওনাকে। আর কিছু না।’ এ ঘটনা ছাড়াও প্রস্তুতি ম্যাচের সময় গ্র্যান্ড স্ট্যান্ডে বেশ কয়েকজন দর্শককে দেখা যায় সাব্বির রহমানকে কটূক্তি করতে। বিসিবির নিরাপত্তা বিভাগের কর্মীদের তখন কোনো ভূমিকা নিতে দেখা যায়নি।

ভারত সফরে ঘোষিত বাংলাদেশ স্কোয়াড ও জাতীয় লিগ থেকে ক্রিকেটারদের নিয়ে আয়োজন করা হয়েছিল এ প্রস্তুতি ম্যাচ। আগে ব্যাট করে ১৪২ রান তোলে সবুজ দল। তাড়া করতে নেমে ৯৩ রান তুলেছে লাল দল। দলীয় ২৮ রানের মধ্যে সৌম্য সরকার, আফিফ হোসেন ও মুশফিককে হারায় লাল দল। এরপর আর ম্যাচে ফিরতে পারেনি তারা। এর আগে আগে ব্যাট করতে নামা সবুজ দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৯ রান করেন ইয়াসির আলী। ৩২ রান করেন ইমরুল কায়েস।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে