চলে গেলেন রাবিপ্রবি’র উপাচার্য ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা

0
104
সাবেক উপাচার্য ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা

মারা গেলেন শিক্ষাবিদ রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম উপাচার্য ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা। বুধবার সকাল ৮:২০ মিনিটে খাগড়াছড়ি আধুনিক সদর হাসপাতালে তিনি মারা যান। সমগ্র পার্বত্য অঞ্চলে তাঁর মৃত্যুতে শোকের ছায়া নেমেছে।

তিনি দীর্ঘদিন যাবৎ শারীরিক জটিলতা ভুগছেন। গত ৬ দিন আগে তাকে ডায়রিয়া জনিত কারণে খাগড়াছড়ির একটি প্রাইভেট হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে চিকিৎসার পর বেশ সুস্থও হয়ে উঠেছেন। পরে তাকে খাগড়াছড়ি হাসপাতালে নেয়া হয়। খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালের চিকিৎসকরা একটি মেডিকেল বোর্ড গঠন করেন। এ মেডিকেল বোর্ড প্রদানেন্দুকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রামে প্রেরণের সিদ্ধান্ত নেন। পরবর্তীতে খাগড়াছড়ি জেলার শীর্ষ পর্যায়ের জনপ্রতিনিধির অনুরোধে তাকে খাগড়াছড়িতে চিকিৎসা প্রদান করা হয়। গতকাল মঙ্গলবার হঠাৎ তাঁর সুগার ও অক্সিজেন লেভেল কমে আসে । এমতাবস্থায় চিকিৎসাধীনভাবে সকাল ৮:২০মিনিটে তিনি মৃত্যু বরণ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৮ বছর।

প্রফেসর ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা খাগড়াছড়ি সদরের খবংপুড়িয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রাথমিক শিক্ষা, ১৯৬৯ সালে খাগড়াছড়ি সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এস.এস.সি, ১৯৭১ সালে চট্টগ্রাম কমার্স কলেজ থেকে কুমিল্লা বোর্ডে সম্মিলিত মেধা তালিকায় ১৩তম স্থান অধিকার করেন। এরপরে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় হতে ব্যবস্থাপনা বিভাগে কৃতিত্বের সাথে ১ম শ্রেণীতে ২য় স্থান অর্জন করে অনার্সসহ মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। পরবর্তীতে গুজরাট বিশ্ববিদ্যালয় হতে পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন করেন। কর্মজীবনে তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ব্যবস্থাপনা বিভাগে শিক্ষকতা করেন।

খাগড়াছড়ি  সদরে শহরতলীতে খবং পড়িয়ায় ড.প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমার গ্রামের বাড়ি । হাসপাতাল থেকে  তাঁর মরদেহটি শহরের খবং পড়িয়ায় নেওয়া হয়েছে। সেখানে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন আত্মীয় স্বজন ও পাড়া প্রতিবেশিরা।

এদিকে বিভিন্ন মিডিয়ায় তাঁর মৃত্যর খবর ছড়িয়ে পড়লে সোসালমিডিয়ায় অসংখ্য শোকবার্তা ও তাকে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

সাবেক উপচার্যের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছে রাঙামাটি বিজ্ঞান প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো উপাচার্য প্রফেসর ড. কাঞ্চন চাকমা। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক অধ্যাপক ছিলেন।

২০১৪ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবিপ্রবি) ১ম উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ২০১৮ সালে তিনি পুনঃনিয়োগ লাভ করেন এবং ২০২২ সাল পর্যন্ত দ্বিতীয় মেয়াদে রাবিপ্রবি’র উপাচার্যের দায়িত্ব পালন করেন। এছাড়া ২০২১ সালে তিনি বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) খণ্ডকালীন সদস্য হিসেবে মনোনীত হন।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.