ঈদের শেষ কর্মদিবসে ব্যাংক খোলা, নেই গ্রাহকের ভিড়

0
42
ব্যাংকের সামনে লাইনও চোখে পড়েনি। ছবিটি গুলশানের একটি ব্যাংকের শাখা থেকে তোলা

ঈদের আগে শেষ কর্মদিবসে রাজধানীর ব্যাংকগুলোতে আজ বুধবার গ্রাহকের তেমন ভিড় দেখা যায়নি। আজ সকালে গুলশান, বনানী ও মতিঝিলের বিভিন্ন ব্যাংক ঘুরে দেখা গেছে, ব্যাংক শাখার ভেতরে কয়েকজন গ্রাহক লাইনে দাঁড়িয়ে। গ্রাহকদের তেমন লম্বা লাইন নেই। যাঁরা এসেছেন, তাঁদের অনেকেই নতুন টাকার খোঁজ করছেন।

ঈদের আগে আজই শেষ ব্যাংক খোলা। তিন দিন বন্ধের পর খুলবে আগামী রোববার। ঈদের খরচের জন্য টাকা উত্তোলন করতে চলতি সপ্তাহের শুরু থেকে গ্রাহকদের চাপ দেখা যায়। বেশির ভাগ শাখায় বাইরেও গ্রাহকের দীর্ঘ সারি দেখা যায়। তবে আজ সেই চাপ চোখে পড়েনি।

মতিঝিলের সোনালী ব্যাংকের স্থানীয় শাখার উপমহাব্যবস্থাপক মো. মনিরুজ্জামান বলেন, ‘আজ তেমন ভিড় নেই। কয়েকজন এসেছেন। অনেকেই নতুন টাকা খুঁজছেন। আমরা চেষ্টা করছি পুরোনো টাকা বদলে নতুন টাকা দেওয়ার।’

এদিকে গুলশান ও বনানীর ব্যাংকগুলোতে দেখা গেছে, শাখার ভেতরে ৮-১০ জন করে গ্রাহক অপেক্ষা করছেন। কোনো কোনো ব্যাংকে গ্রাহকের সংখ্যা আরও কম। যাঁরা এসেছেন, তাঁদের বেশির ভাগই নতুন টাকার খোঁজে এসেছেন। কেউ কেউ ভিড় কম থাকায় ব্যাংকে অন্য কাজও সেরে নিচ্ছেন।

ঈদের আগে শেষ কর্মদিবসে রাজধানীর ব্যাংকগুলোতে বুধবার গ্রাহকের তেমন ভিড় দেখা যায়নি। ছবিটি গুলশানের একটি ব্যাংকের শাখা থেকে তোলা

ঈদের আগে শেষ কর্মদিবসে রাজধানীর ব্যাংকগুলোতে বুধবার গ্রাহকের তেমন ভিড় দেখা যায়নি। ছবিটি গুলশানের একটি ব্যাংকের শাখা থেকে তোলা

ব্যাংকগুলোতে ভিড় কম থাকলেও ব্যাংকে স্বাস্থ্যসুরক্ষায় হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও তাপমাত্রা মাপতে থার্মাল ব্যবহার করা হচ্ছে। মাস্ক ছাড়া কাউকে ভেতরে প্রবেশ করতে দেওয়া হচ্ছে না।

সাধারণত ২৯ রমজান থেকে সরকারি ছুটি শুরু হয়। আজ বুধবার ২৯ রমজান। তবে এবার ২৯ রমজানে সরকারি অফিস খোলা আছে। করোনাভাইরাসের প্রকোপ নিয়ন্ত্রণের জন্য ঈদের ছুটি সংক্ষিপ্ত করে সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ কারণে আজ অফিস ও ব্যাংক খোলা। ব্যাংকগুলোতে এখন সকাল ১০টা থেকে বেলা ২টা পর্যন্ত লেনদেন হচ্ছে। শেয়ারবাজারে লেনদেন চলছে সকাল ১০টা থেকে বেলা দেড়টা পর্যন্ত।